জানুয়ারী টু জুন-২০২১ সালের ৬মাস মেয়াদী কম্পিউটার কোর্সের ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে- , -জানুয়ারী টু জুন-২০২১ সালের ৬মাস মেয়াদী কম্পিউটার কোর্সের ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে- , -জাতীয় দক্ষতামান বেসিক (৩৬০ ঘন্টা) শিক্ষাক্রমের জুলাই-ডিসেম্বর ও অক্টোবর-ডিসেম্বর, ২০২১ সেশনের চুড়ান্ত লিখিত ও ব্যবহারিক পরীক্ষার বিজ্ঞপ্তি- , -জুলাই টু ডিসেম্বর-২০২১ ব্যাচ এর ৩য় সেমিষ্টার পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে..- , -জুলাই টু ডিসেম্বর-২০২১ ব্যাচ এর ২য় সেমিষ্টার পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে..- , -জাতীয় দক্ষতামান বেসিক (৩৬০ ঘন্টা) শিক্ষাক্রমে (জানুয়ারি-মার্চ ও জানুয়ারি-জুন-২০২২) রেজিস্ট্রেশন কার্যক্রম চলছে শেষ তারিখ 22-03-2022- , -জুলাই টু ডিসেম্বর-২০২১ ব্যাচ এর ১ম সেমিষ্টার পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে..- , -জুলাই টু ডিসেম্বর পরীক্ষার সিলেবাস সমূহঃ-- , -১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২২ইং তারিখ বৃহঃবার দুপুর ১টায় (জুলাই-ডিসেম্বর -২০২১) ব্যাচের ১ম সেমিষ্টার পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হবে।- , -ভর্তি চলছে ভর্তি চলছে !!! ৩মাস, ৬মাস, ১বছর, ২বছর কম্পিউটার কোর্সে ভর্তি চলছে !!!
আমাদের ফেসবুক পেজ
Previous
Next

মোঃ দেলোয়ার হোসেন

পরিচালক
Previous
Next

মোঃ নাজির হোসেন

সভাপতি
আমাদের ফেসবুক পেজ

বর্তমান যুগ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির যুগ । এ শতাব্দীতে বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তির ক্ষেত্রে যে উন্নতি সাধিত হয়েছে তা সমগ্র বিশ্বকে একটি গ্লোবাল ভিলেজে পরিণত করেছে । আজকের এ বিশ্ব প্রতিযোগিতায় টিকে থেকে অর্থনৈতিক যুদ্ধে জয়ী হতে হলে আমাদের তরুণদের কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষিত করে দক্ষ মানব সম্পদে পরিণত করতে হবে । যুগ উপযোগী শিক্ষার মাধ্যমে মেধা ও যোগ্যতাকে কাজে লাগিয়ে বিশ্ববাজারে নিজেকে স্থান করে নিতে হবে । যুগের দাবি পূরণের এ মহিত লক্ষ্যকে সামনে রেখে বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অনুমদন পেয়ে নওয়াপাড়া টেকনিক্যাল ইন্সটিটিউট পরিচিতি লাভ করেছে । বর্তমানে আমাদের এই প্রতিষ্ঠানে অল্প খরচে কম্পিউটার কোর্স করানো হয় । আমাদের আরো নতুন নতুন কোর্সসমূহ খোলার পরিকল্পনা রয়েছে । দক্ষিণ অঞ্চলে আমরাই সর্বপ্রথম কারিগরি শিক্ষা বিস্তার ও দক্ষ জনশক্তি তৈরির লক্ষ্যে এই উদ্যোগ গ্রহণ করেছি ।

পরিচালক

বিশ্বায়নের এই যুগে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির কোনো বিকল্প নেই। উন্নয়নের অংশীদার হতে হলে এবং এর সুফল পেতে হলে দক্ষ জনশক্তি গঠন অবশ্যই প্রয়োজন। আর সে লক্ষ্যেই সাধারণ শিক্ষার পাশাপাশি কারিগরি শিক্ষার সংযোজন একটি যুগোপযোগী সিদ্ধান্ত। কারিগরি শিক্ষার গুরুত্ব অনুধাবন করে সেদিন জন্ম হয়েছিল নওয়াপাড়া টেকনিক্যাল ইন্সটিটিউট এর। আর তারই ধারাবাহিকতায় আজকের এই পথচলা। বর্তমান সরকারের সদিচ্ছা ও সহযোগিতার সাথে আমাদের ঐকান্তিক চেষ্টাই আগামী দিনে কারিগরি শিক্ষাকে মূলধারার শিক্ষায় পরিণত করবে এটাই আমাদের সকলের প্রত্যাশা। বহুল জনসংখ্যাপূর্ণ আমাদের এই দেশে কারিগরি শিক্ষাই পারে অবস্থার উন্নতি ঘটাতে এবং উন্নত দেশসমূহের কাতারে সামিল করতে। সেদিন হয়তো আর বেশি দূরে নয় যেদিন আমরা চাকুরী প্রত্যাশী নয় বরং

সভাপতি

প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে একেকজন উদ্যোক্তা হিসেবে গড়ে তুলব এবং কর্মসংস্থান সৃষ্টি করব। স্বয়ংসম্পূর্ণ ও সবল রাষ্ট্র হিসেবে পৃথিবীর বুকে নিজেদেরকে তুলে ধরব নতুন আঙ্গিকে নতুন চেতনায়। শুধু তাই নয় নেতৃত্বে কারিগরি শিক্ষার্থীরা থাকবে অগ্রভাগে। তাদের উদ্ভাবনী ও সৃজনশীল চিন্তা-আবিস্কার জীবনযাত্রায় আনবে স্বাচ্ছন্দ্যময় পরিবর্তন। সময়ের পরিবর্তনের ধারায় আমরা থাকব প্রথম সারিতে। প্রাণচাঞ্চল্য ও কর্মব্যস্ততায় আমাদের জীবন হয়ে উঠবে উপভোগ্য আর নৈতিকতায় থাকব আপসহীন। চিরমহান মঙ্গলময় সৃষ্টিকর্তার নিকট এমনই প্রার্থনা ও সমর্পণ রেখে কৃতজ্ঞতায় অন্তর পূর্ণ হোক।

নওয়াপাড়া টেকনিক্যাল ইন্সটিটিউট এই অগ্রগামী প্রতিষ্ঠানটি অন্যতম সমৃদ্ধ টেকনিক্যাল প্রতিষ্ঠান। এই প্রতিষ্ঠানটি দেশ বিদেশে কর্মক্ষেত্রে দক্ষ প্রকৌশল গড়ে তোলার লক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে। এই প্রতিষ্ঠানটির লক্ষ এমন একটি নামী টেকনিক্যাল ইন্সটিটিউট হওয়া যা জাতির বিকাশ এবং দেশের উন্নয়ন বৃদ্ধির এবং প্রয়োজনীয় জনবল তৈরিতে অবদান রাখতে পারে। এখানে একাডেমিক প্রোগ্রাম গঠনের ক্ষেত্রে বেশ্বিক এবং সাংস্কৃতিক পরিবর্তন গুলিতে এমনভাবে বিবেচনা করা হয় যাতে শিল্প ও প্রযুক্তিগত উন্নয়নের সাথে একটি সংযোগ বজায় থাকে। # আমাদের প্রতিষ্ঠানটি বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের কারিকুলাম অনুসারে এবং ড্যাফোডিল ইনফরমেশন টেকনোলজি ফাউন্ডেশন কারিকুলাম অনুসারে পরিচালিত একটি কারিগরি ও বৃত্তিমূলক প্রতিষ্ঠান।

চীফ ইন্সট্রাক্টর
Scroll to Top